শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০, ০৮:০৭ পূর্বাহ্ন

বাফুফে নির্বাচন : বাদলের প্রার্থীতা ঘোষণা নিয়ে অপপ্রচার

মুক্ত স্বদেশ ডেস্কঃ
  • প্রকাশকালঃ শনিবার, ৩ অক্টোবর, ২০২০

বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) নির্বাচনে বাদল রায় নিজেকে সমন্বয় পরিষদের প্যানেলের সভাপতি প্রার্থী হিসেবে ঘোষণার বিষয়টি সম্পুর্ণ ভূয়া ও ভিত্তিহীন । সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বাদল রায়ের দেওয়া এই ঘোষণাকে অপপ্রচার বলে জানিয়েছেন অনেকেই।

এ বিষয়ে বাদল রায়ের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তার ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। তবে বাদল রায়ের ঘনিষ্ঠ একজন বলেছেন , কেউ হয়তো বাদল রায়ের আইডি হ্যাক করে এই অপপ্রচার চালাচ্ছে। ওই ঘোষণায়, বাফুফে নির্বাচনের শেষ মূহুর্তে বাদল রায় নিজেকে সমন্বয় পরিষদের প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা দেন।

এ বিষয়ে সমন্বয় পরিষদের সাথে যোগাযোগ করা হলে জানা যায় যে বাদল রায় সমন্বয় পরিষদের কারো সাথে কোন প্রকার কথাবার্তা ও যোগাযোগ ছাড়াই নিজেকে সমন্বয় পরিষদের প্রার্থী হিসেবে দাবি করেন। যা সম্পুর্ন ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্যে প্রণোদিত।

এ বিষয়ে সত্যতা যাচাইয়ের জন্য সমন্বয় পরিষদের একজন সহ- সভাপতি প্রার্থী জানান , বাদল রায়ের সাথে আমাদের কোন সম্পর্ক নেই। কারণ আমরা সহ-সভাপতি পদ দিয়েই আমরা প্যানেল ঘোষণা করেছি।

বাফুফের বর্তমান সভাপতি ও সভাপতি প্রার্থী কাজী সালাউদ্দিন ফুটবলের উন্নয়নে ৩৬ দফা ইশতেহার ঘোষণা করেছেন। এর আগে ২০ এপ্রিল নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও করোনা ভাইরাসের কারনে তা স্থগিত করা হয়। অবশেষে করোনা সমস্যা দূর হবার আগেই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এবারের নির্বাচনে সহ সভাপতি পদে আটজন প্রার্থী রয়েছেন।

লড়াই হবে মূলত কাজী সালাউদ্দিন- সালাম মুর্শেদীর নেতৃত্বাধীন সম্মিলিত ঐক্যপরিষদ প্যানেল ও গোলাম রব্বানী হেলাল- আরিফ খান জয় নেতৃত্বাধীন ফুটবল বাঁচাও পরিষদের মধ্যে। তবে সভাপতি পদে কাজী সালাউদ্দিনকে চ্যালেঞ্জ জানানোর কেউ না থাকলেও নির্বাচনে লড়তে হচ্ছে তাকেও।

সভাপতি পদপ্রার্থী হিসেবে সর্বশেষ আবদুর রহিম নিজেকে প্রত্যাহার করে নিলেও নির্ধারিত সময়ের পরে প্রত্যাহার করায় নির্বাচনী বিধি মোতাবেক সভাপতি প্রার্থী হিসেবে আবদুর রহিমের নাম ব্যালটে থাকবে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার মো. মেজবাহউদ্দিন।

অন্যান্য প্রার্থীর মধ্যে সিনিয়র সহ-সভাপতি পদে লড়াই জমে উঠেছে। বর্তমান সিনিয়র সহ-সভাপতি আবদুস সালাম মুর্শেদীকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়েছেন সাবেক তারকা ফুটবলার গোলাম রব্বানী হেলাল।

এছাড়া এই পদে আবাহনী ক্লাবের পরিচালক ও সাবেক জাতীয় দল অধিনায়ক আশরাফউদ্দিন আহমেদ চুন্নু, শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রের সভাপতি নুরুল আলম চৌধুরী এবং মোহামেডানের সাবেক অতিরিক্ত সাধারণ সম্পাদক মোস্তাকুর রহমান প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

চারটি সহ-সভাপতি পদের বিপরীতে প্রার্থী হলেন নয়জন। বর্তমান চার সহ-সভাপতি বাদল রায়, কাজী নাবিল আহমেদ, শওকত আলী খান জাহাঙ্গীর, মনজুর হোসেন মালু সম্মিলিত ঐক্য পরিষদের ব্যানারে নির্বাচন করলেও তাদের কঠিন পরীক্ষায় ফেলে দিয়েছেন ফুটবল বাঁচাও পরিষদের প্রার্থী তাবিদ আউয়াল, মহিউদ্দিন আহমেদ মহি ও আরিফ খান জয়রা।

এছাড়া সাবেক দুই তারকা ফ্টুবলার সৈয়দ রুম্মান বিন ওয়ালী সাব্বির এবং খুরশীদ আলম বাবুলও সহ-সভাপতি পদে প্রার্থী হয়েছেন।

বাফুফের ১৫টি কার্যনির্বাহী সদস্য পদে প্রার্থী হয়েছেন ৩৬ জন। সদস্য পদে সম্মিলিত ঐক্য পরিষদের প্যানেলে এই পদে প্রার্থী হয়েছেন বর্তমান কমিটির সদস্য হারুনুর রশিদ, সিরাজুল ইসলাম বাচ্চু, আনোয়ারুল হক হেলাল, শাসসুল হক চৌধুরী, হাসানুজ্জামান বাবলু, শেখ মোহাম্মদ আসলাম, ফজলুর রহমান বাবুল, সত্যজিৎ দাস রূপু, শেখ মুহাম্মদ মারুফ হাসান, আব্দুল গাফফার, তৌফিকুল ইসলাম তোফা, আলমগীর খান আলো, ইলিয়াস আলী, আরিফ হোসেন মুন ও আজমল আহমেদ তপন।

অন্যদিকে ফুটবল বাঁচাও পরিষদের সদস্য পদপ্রার্থীরা হলেন সাজ্জাদুর রহমান ডাবলু, আমিরুল ইসলাম বাবু, আজফারউজ্জামান সোহরাব, মোজাম্মেল হক মুক্তা, আবু হাসান চৌধুরী প্রিন্স, মহিদুর রহমান মিরাজ, সাইফুল ইসলাম ভুট্টো, ইকবাল হোসেন, অধ্যক্ষ মঞ্জুরুল আলম দুলাল, আমের খান, শফিকুল ইসলাম মানিক ও বিজন বড়ুয়া।

এদিকে প্রথমবারের মতো একজন পুলিশ কর্মকর্তা এবং নারী নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। সদস্য পদে ঢাকা মেট্টোপলিটান পুলিশের ডেপুটি কমিশনার শেখ মারুফ হাসান এবং একই পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী মাহফুজা আক্তার কিরণ সবার নজর কেড়েছেন।

নির্বাচনের আগে সোমবার সকালে হবে বাফুফের বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) হবে। ওই সভায় বিগত চার বছরের আয়-ব্যয়ের অডিট রিপোর্ট, কার্যবিবরণী অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হবে। ১২২জন কাউন্সিলর নির্বাচনে ভোট দেবেন।

কাউন্সিলরদের মধ্যে ঢাকার বিভিন্ন ক্লাবের রয়েছেন ৪২জন, জেলা ও বিভাগীয় ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের ৬৬ জন এবং অন্যান্য ভোটার রয়েছেন ১৪ জন।

এদিকে নির্বাচন পর্যবেক্ষণের জন্য রোববার রাতে ঢাকা আসছেন এএফসি সহ-সভাপতি ও ফিফা সদস্য মনিলাল ফার্নান্ডো।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো সংবাদ
কারিগরি সহযোগিতায়: শরিফুল ইসলাম
01779911004