রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে ব্যবস্থা নিতে জাতিসংঘের প্রতি পররাষ্ট্রমন্ত্রীর আহ্বান

প্রকাশিত: মে ২৪, ২০২২

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন রোহিঙ্গাদের নিজ বাসভূমি মিয়ানমারে ফিরে যেতে দ্রুত প্রত্যাবাসন নিশ্চিত করতে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য জাতিসংঘের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার (২৪ মে) রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় ড. মোমেনের কাছে পরিচয়পত্র পেশ করেন বাংলাদেশে জাতিসংঘের আবাসিক নতুন প্রতিনিধি গুইন লিউইসকে। এ সময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ আহ্বান জানান।

লিউইস এ সময় জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্থনি গুতেরাসের দেয়া একটি পত্র হস্তান্তর করেন। তিনি বিদায়ী কোঅর্ডিনেটর মিয়া সিপোর স্থলাভিষিক্ত হলেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোমেন রোহিঙ্গাদের দেশে ফিরে যাবার বিষয়ে বিশ্বব্যাপী সচেতনতা সৃষ্টিতে জাতিসংঘ এবং স্টেকহোল্ডারদের প্রচেষ্টা আরো বাড়ানোর ওপর গুরুত্বারোপ করেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী গত অক্টোবরে বাংলাদেশ সরকার এবং ইউএনএইচসিআর’র মধ্যে স্বাক্ষরিত সমঝোতা স্মারকের ভিত্তিতে ভাসানচরে জাতিসংঘ সংস্থাগুলোর কর্মকান্ড শুরু করার ওপর গুরুত্বারোপ করেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশে সদ্য দায়িত্বপ্রাপ্ত জাতিসংঘ কর্মকর্তা লুউইসকে স্বাগত জানিয়ে উন্নয়ন, শান্তি এবং নারীর ক্ষমতায়ন থেকে শুরু করে সকল ক্ষেত্রে বাংলাদেশ সরকার ও জাতিসংঘের মধ্যকার দীর্ঘদিনের সহযোগিতা আরও জোরদারের ব্যাপারে দৃঢ় আশা প্রকাশ করেন।

বৈঠকে লুউইস সকল ক্ষেত্রে উন্নয়নে বাংলাদেশ সরকারের প্রশংসা করেন। বৈঠকে তারা বৈশ্বিক জলবায়ু কর্মসূচিতে অর্থায়নে এবং জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা কর্মকান্ডে বাংলাদেশের ভূমিকার মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নিয়েও আলোচনা করেন।

বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে বাংলাদেশ থেকে আরও শান্তিরক্ষী পাঠানোর বিষয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেন।

সূত্র : বাসস